12 December 2017 , Tuesday
Bangla Font Download
সর্বশেষ খবর »

You Are Here: Home » জাতীয়, প্রবাশের সংবাদ, রাজনীতি, সর্বশেষ সংবাদ » সরকার পিছু হটেনি- প্রধানমন্ত্রী

লন্ডন: নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মা সেতু নির্মাণের উদ্যোগ থেকে সরকার সরে আসেনি বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। নিজস্ব অর্থায়নেই পদ্মা সেতু হচ্ছে। আমাদের যে উদ্যোগ- তাতে ভাটা পড়েনি। বুধবার লন্ডনে হোটেল সেন্ট প্যানক্রসে স্থানীয় বাংলা প্রচার মাধ্যমের প্রতিনিধিদের সঙ্গে ইফতারের পর তাদের বিভিন্ন প্রশ্নেরও উত্তর দেন শেখ হাসিনা।
বিশ্ব ব্যাংক ঋণ বাতিলের সিদ্ধান্ত পাল্টে পদ্মা সেতুতে অর্থায়ন করলে সেটা তারা ‘নিজেদের বিবেচনায়’ করবে উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “এটা তাদের বিবেচনা। আর এটা ভুল ধারণা, আমরা পিছু হটিনি। আমরা পিছু হটবো না।”
পদ্মা সেতুতে পরামর্শক নিয়োগে অনিয়মের অভিযোগ তুলে বিশ্ব ব্যাংক গত ২৯ জুন ১২০ কোটি ডলারের ঋণচুক্তি স্থগিত করে। এরপর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাতীয় সংসদে নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মা সেতু নির্মাণের রূপরেখা ঘোষণা করেন। এজন্য অভ্যন্তরীণ উৎস থেকে অর্থ সংগ্রহেরও সিদ্ধান্ত হয় মন্ত্রিসভার বৈঠকে।
তবে অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত গত ২২ জুলাই সাংবাদিকদের বলেন, সরকার এ প্রকল্প বাস্তবায়নে চারটি বিকল্প নিয়ে এগোচ্ছে, যার মধ্যে প্রথমটি হলো বিশ্ব ব্যাংককে ফেরানো এবং সর্বশেষ পথ নিজস্ব অর্থায়ন।
বিশ্ব ব্যাংককে পদ্মা প্রকল্পে ফেরাতে সরকারের চেষ্টার অংশ হিসাবে গত সোমবার মন্ত্রিত্ব থেকে ইস্তফা দেন সৈয়দ আবুল হোসেন, যিনি বিশ্ব ব্যাংকের সঙ্গে চুক্তির সময় যোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বে ছিলেন।

অর্থায়ন চালিয়ে যাওয়ার জন্য বিশ্ব ব্যাংক যে চারটি শর্ত দিয়েছিল তার মধ্যে চতুর্থটি ছিল- যাদের বিরুদ্ধে অভিযোগ, সেই সব সরকারি ব্যক্তি অর্থাৎ আমলা ও রাজনৈতিকভাবে নিয়োগপ্রাপ্তদের তদন্ত চলাকালে সরকারি দায়িত্ব পালন থেকে ছুটি দিতে হবে।

ইস্তফা দেওয়ায় সৈয়দ আবুল হোসেনের প্রশংসা করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা লন্ডনে সাংবাদিকদের সঙ্গে মত বিনিময়ে বলেন, তার গাটস্ আছে বলেই রিজাইন দিতে পেরেছে। দেশপ্রেম আছে বলেই রিজাইন দিয়েছে। তবে বিশ্ব ব্যাংক আবুল হোসেনের বিরুদ্ধে দুর্নীতির কোনো তথ্য প্রমাণ দিতে পারেনি বলেও প্রধানমন্ত্রী উল্লেখ করেন।
এ সরকারের মেয়াদেই পদ্মা সেতুর কাজ শুরুর প্রত্যয় জানিয়ে শেখ হাসিনা বলেন, “বিশ্ব ব্যাংক আসুক আর না আসুক- আমরা পদ্মা সেতু করব। আমাদের নিজেদের প্রস্তুতি আছে। বিশ্ব ব্যাংক কী করে- এটা তাদের এখতিয়ার।”
বর্তমান মহাজোট সরকারের মন্ত্রীদের সম্পদের হিসাব দেওয়া প্রসঙ্গে এক প্রশ্নের জবাবে প্রধানমন্ত্রী বলেন, মন্ত্রীরা প্রতি বছর মন্ত্রিপরিষদ বিভাগে সম্পদের হিসাব দিচ্ছেন। এছাড়া নির্বাচন কমিশনের ওয়েব সাইটে গেলেও তাদের সম্পদের হিসাব পাওয়া যাবে। তাছাড়া আয়কর দেওয়ার সময়ও তারা হিসাব দেন।

Use Facebook to Comment on this Post

Leave a Reply

Editor : ISHARAT ALI, 01712651840, 01835017232 E-mail : satkhiranews24@yahoo.com, rangtuli80@yahoo.com


Site Hosted By: WWW.LOCALiT.COM.BD