24 January 2018 , Wednesday
Bangla Font Download
সর্বশেষ খবর »

You Are Here: Home » দেবহাটা » আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদকের হত্যাচেষ্টায় ৩জনকে আসামী করে থানায় মামলা উপজেলা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সহ গ্রেফতার ৩


দেবহাট প্রতিনিধি: আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও সখিপুর ইউপি চেয়ারম্যান শেখ ফারুক হোসেন রতনের হত্যাচেষ্টায় পরিবারের পক্ষ থেকে দেবহাটা থানায় ৩ জনের নাম এবং অজ্ঞাত ৫/৬ জন উল্লেখ করে মামলা। উপজেলা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সহ গ্রেফতার ৩।
দেবহাটা উপজেলার বর্শিয়ান নেতা আঃলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও সখিপুর ইউপি চেয়ারম্যান শেখ ফারুক হোসেন রতনকে হত্যা চেষ্টার ৬ দিন অতিবাহিত হওয়ার পরে দেবহাটা থানায় মামলা। পরিবারের পক্ষ থেকে মামলাটি দায়ের করেছেন গুলিতে আহত চেয়ারম্যান শেখ ফারুক হোসেন রতনের ‘মাতা’ মিনা বেগম (৬৫)।
থানা সুত্রে জানা যায়, সোমবার রাতে দেবহাটা থানায় চেয়ারম্যান রতন হত্যা চেষ্টায় দঃ বিঃ, ৩৪১/৩২৬/৩০৭/ ৩৪ ধারায় একটি মামলা রেকর্ড করা হয়েছে। যার নং- ০২। মামলায় এজাহারভুক্ত হিসেবে ৩ জনের নাম উল্লেখ করা ছাড়াও অজ্ঞাতনামা আরো ৫/৬ জনকে আসামী করা হয়েছে। পুলিশ এই মামলায় এজাহারভুক্ত ১ জন ছাড়াও সন্দেহ ভাজন হিসেবে আরও ২ জনকে গ্রেফতার করেছে। এ মামলায় মঙ্গলবার দুপুরে এজাহারভুক্ত আসামী দেবহাটা উপজেলার নারিকেলী গ্রামের শফিকুল ইসলামের ছেলে উপজেলা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শহিদুজ্জামান সাদ্দাম (২৮)কে তার বাড়ি থেকে এবং সন্দেহ ভাজন আসামী হিসাবে তালা উপজেলার পাটকেলঘাটার মঙ্গলানন্দকাটি গ্রামের শেখ আব্দুল হকের ছেলে শেখ আব্দুল গফুর (২৪) ও শ্রীমন্তকাটি গ্রামের আব্দুর রাজ্জাক মোড়লের ছেলে শিমুল মোড়ল (২০) কে গ্রেফতার করা হয়েছে।
উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও ইউপি চেয়ারম্যান শেখ ফারুক হোসেন রতন গত ২ জানুয়ারী মঙ্গলবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে মটরসাইকেল যোগে পারুলিয়া থেকে বাড়ি ফেরার পথে সখিপুর দেবহাটা সড়কে রহিমের বাড়ি সংলগ্ন রাস্তার উপর সন্ত্রাসীরা তাকে গতিরোধ করে পরপর ৩টি গুলি ছোঁড়ে। এতে তার বুকে নিচে একটি গুলি লাগলে তিনি গুরুতর আহত হন। মূমুর্ষ অবস্থায় স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে প্রথমে সখিপুর হাসপাতাল এবং পরে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে নিয়ে যায়। পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে ৩টি গুলির খোসা ও পাশের বাগানের মধ্য থেকে এক জোড়া জুতা উদ্ধার করে। পরে তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকায় পাঠানো হয়।
এব্যাপরে দেবহাটা থানার ওসি কাজী কামাল হোসেন মামলা হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, গুরুত্বের সাথে মামলাটির তদন্ত চলছে। এপর্যন্ত ৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে এবং অবিলম্বে অনান্য আসামীদের গ্রেফতার কার হবে বলে তিনি জানান।

Use Facebook to Comment on this Post

Leave a Reply

Editor : ISHARAT ALI, 01712651840, 01835017232 E-mail : satkhiranews24@yahoo.com, rangtuli80@yahoo.com


Site Hosted By: WWW.LOCALiT.COM.BD