24 January 2018 , Wednesday
Bangla Font Download
সর্বশেষ খবর »

You Are Here: Home » রাজনীতি » মন্ত্রিত্ব হারালেন সৈয়দ আশরাফ এলজিআরডির দায়িত্ব পাচ্ছেন খন্দকার মোশাররফ হোসেন

asraf
খুলনানিউজ.কম:: স্থানীয় সরকার পল্লী উন্নয়ন ও সমবায়মন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলামকে সরিয়ে দেয়া হলো। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মঙ্গলবার এই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন । তবে এখনো এব্যাপার প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়নি।প্রজ্ঞাপন জারির বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন বলে জানা গেছে। তবে এই পদে কাকে দেয়া

হচ্ছে সে ব্যাপারে তাৎক্ষণিকভাবে কিছু জানা যায়নি।আওয়ামী লীগের এই সাধারণ সম্পাদকের বিরুদ্ধে ঠিকভাবে অফিস না করার অভিযোগ দীর্ঘ দিনের। এছাড়া গত কয়েক দিন আগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপস্থিতিতে জাতীয় সংসদে বক্তব্য দেয়ার সময় একাধিক ভুল তথ্য পরিবেশন করার ঘটনা নিয়ে সংবাদ মাধ্যমেও রিপোর্ট প্রকাশিত হয়।

মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ সূত্রে জানা যায়, মঙ্গলবার সকালে সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম মন্ত্রিত্ব থেকে অব্যাহতি চেয়ে প্রধানমন্ত্রীর কাছে আবেদন করেন। পরে প্রধানমন্ত্রী তাঁর আবেদনে সারা দিয়ে তাকে অব্যাহতি দেন।

এর মধ্যদিয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম এখন দপ্তরবিহীন মন্ত্রী।

khondokar
এদিকে স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত দায়িত্ব দেওয়া হচ্ছে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার খন্দকার মোশাররফ হোসেনকে। এর আগে এই মন্ত্রণালয়ের দায়িত্বে ছিলেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম। তাকে মঙ্গলবার দুপুরে এলজিআরডি মন্ত্রণালয় থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়। এ বিষয়ে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে প্রজ্ঞাপন জারির প্রক্রিয়া চলছে বলে জানা গেছে। কর্মক্ষেত্রের সব জায়গাতেই অসামান্য কাজের দৃষ্টান্ত রেখেছেন প্রবাসীকল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থানমন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার খন্দকার মোশাররফ হোসেন।

স্থানীয় সরকার ও প্রকৌশল অধিদপ্তর (এলজিইডি) প্রতিষ্ঠায় তাঁর অবদান সর্বজন স্বীকৃত। জাতিসংঘের আন্তর্জাতিক শ্রম সংস্থা্র (আইএলও) চিফ টেকনিক্যাল কলসালট্যান্ট পদে চাকরি নিয়ে তিনি ১৯৮০ সালে সিয়েরা লিওনে যান। সেখানে কাজের মাধ্যমে এতটাই স্থানীয়দের মন জয় করেন যে, এতে দেশটির সরকার খুশি হয়ে তাঁকে সম্মানজনক নাগরিকত্ব দেয়। পরে উগান্ডাতেও সাফল্যের সঙ্গে একই দায়িত্ব পালন করেন খন্দকার মোশাররফ হোসেন। প্রকৌশলী হিসেবে শতভাগ সাফল্য পাওয়ার আচমকাই প্রকাশ্য রাজনীতিতে আসেন তিনি। ছাত্রজীবনে ছাত্রলীগের রাজনীতির সঙ্গে জড়িয়ে থাকা, বঙ্গবন্ধুর আদর্শের প্রতি সব সময় নিষ্ঠাবান থাকলেও সরকারি চাকরির কারণে তখন প্রত্যক্ষ রাজনীতি করা সম্ভব ছিল না। ২০০৮ সালে ফরিদপুর-৩ (সদর) আসন থেকে বিপুল ভোটে সাংসদ নির্বাচিত হওয়ার পর প্রবাসীকল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান এবং শ্রম ও কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রীর দায়িত্ব পান।

Use Facebook to Comment on this Post

Leave a Reply

Editor : ISHARAT ALI, 01712651840, 01835017232 E-mail : satkhiranews24@yahoo.com, rangtuli80@yahoo.com


Site Hosted By: WWW.LOCALiT.COM.BD